ইন্ডিয়ান আইডলের রানারআপ বাংলার মেয়ে অরুনিতা

ইন্ডিয়ান আইডলের রানারআপ বাংলার মেয়ে অরুনিতা

বনগাঁ মফস্বলের মেয়ে অরুনিতা যা কলকাতা থেকে একটু দূরে । ইন্ডিয়ান আইডলের দৌলতে এখন এই নামটা সকলের মুখে মুখে ফিরছে। ইন্ডিয়ান আইডল সিজন ১২  গ্রেটেস্ট ফিনালে অনেক চড়াই উৎরাইয়ের পর রানারআপ হয় বাংলার গর্ব অরুনিতা। 

মায়ের হাত ধরেই মেয়েটার বড় হয়ে ওঠা ও গানের জগতে প্রবেশ করা। নিজের অপূর্ণ ইচ্ছেকে মেয়ের মধ্যে রোপণ করেছিলেন মা। মাত্র ৪ বছর বয়স থেকে গানে হাতেখড়ি মায়ের হাতেই। অরুনিতার সুরেলা কন্ঠের খোঁজ পেয়ে পুনের এক বিখ্যাত সঙ্গীত বিশারদ অরুনিতা কে গানের তালিম দিতে আগ্রহী হন। তার বিশ্বাস ছিল এ মেয়ে একদিন অনেক দূর যাবে।

জি বাংলার ছোটদের গানের রিয়েলিটি শো ‘সারেগামাপা লিল চ্যাম্প ‘ এ অংশগ্রহণ করেছিলেন অরুনিতা। প্রথম পুরস্কার গিয়েছিল অরুনিতার ঝুলিতে। এরপর তার সফর শুরু হয় মুম্বাই তে। সেখানে জুনিয়র ইন্ডিয়ান আইডল এ পার্টিসিপেন্ট ছিলেন অরুনিতা। আর সেবারেও বাংলার মুখে হাসি ফুটিয়ে জয় আসে মিষ্টি মেয়েটার। এরজন্য  বিচারক মোনালি ঠাকুরের কাছে গান শেখার সুবর্ণ সুযোগ মেলে ।

গত ৮ মাস ধরে  ১৮ বছরের অরুনিতার মায়াবী কণ্ঠ গান শুনেছে সারা ভারতবর্ষ। ইন্ডিয়ান আইডল সিজন ৮ তাকে আরো মানুষের কাছে এনে দেয়। সঙ্গীতপ্রেমী মানুষের ঘরে ঘরে একটাই নাম অরুনিতা। ইতিমধ্যে দেশ বিদেশে একাধিক শো করে ফেলেছে অরু।

শিরোপা জোটেনি এই বঙ্গ প্রতিভার। কিন্তু আশা থেকে নেহা সকলের আশীর্বাদ নিয়ে অনেক দূরে এগিয়ে যাচ্ছে অরুনিতা। বাপ্পী লাহিড়ী, হিমেশের  মত সঙ্গীত পরিচালকদের কাছ থেকে গান গাওয়ার কন্ট্রাক পেয়েছে অরুনিতা কাঞ্জিলাল। মায়ের মুখ উজ্জ্বল করে সেদিনের অরুনিতা এখন দেশের প্লে ব্যাক সিঙ্গার হওয়ার পথে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here