কাঙ্গনার টুইটার স্থায়ীভাবে নিষিদ্ধ

0
90
কাঙ্গনার টুইটার পারমানেন্টলি সাসপেনডেড

বলিউড কুইন কাঙ্গনা রনৌতের টুইটার অ্যাকাউন্ট  একেবারে ‘পারমানেন্টলি সাসপেনডেড’ । নতুন করে আর কোনও ‘বিতর্ক’ কিংবা বিদ্বেষ ছড়ানোর অবকাশ রইল না তার।

পশ্চিমবঙ্গে মমতার বিজয়ের পর মোদিভক্ত কঙ্গনা একটু বেশিই বাড়াবাড়ি ধরনের টুইট করেছিলেন, এমন অভিযোগ নেটিজেনদের । পশ্চিমবঙ্গে ভোটের ফলাফল ঘোষণার পর থেকেই একের পর এক টুইট করেন কাঙ্গনা । একটিতে লিখেছেন, ‘বাংলাদেশি আর রোহিঙ্গারাই মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের আসল শক্তি । পশ্চিমবঙ্গে হিন্দুরা আর সংখ্যাগরিষ্ঠ নেই। বাঙালি মুসলিমরা হলো ভারতবর্ষে সবচেয়ে গরিব। বাংলায় আরেকটা কাশ্মির তৈরি হচ্ছে ।’ অন্য এক টুইটে লেখেন, ‘আগামীদিনে বাংলায় রক্তস্নান হবে। সরকার হেরে যাওয়ার ভয়ে রক্ত পিপাসু হয়ে উঠবে।’তবে সর্বশেষ পেরেক ঠুকলেন এই টুইটে, ‘এটা ভয়ঙ্কর…গুন্ডাইকে মেরে ফেলতে আমাদের সুপার গুন্ডাইয়ের প্রয়োজন… তিনি অব্যক্ত দানবের মতো, তাকে দমন করার জন্য দয়া করে ২০০০ সালের প্রথম দিকের বিরাট রূপটা দেখান মোদিজি।’

এরপরই টুইট কর্তৃপক্ষ নড়েচড়ে বসে। মাইক্রোব্লগিং সাইটটির মুখপাত্র জানান, ‘ওই অ্যাকাউন্টটি বারবারই আমাদের পলিসির বিরুদ্ধে যাচ্ছিল। বিশেষ করে বিদ্বেষ ছড়ানো নিয়ে যে পলিসি, সেটার তোয়াক্কা করা হচ্ছিল না।’তবে রগচটা-খ্যাত এ অভিনেত্রীর ইনস্টাগ্রাম এখন সরব। সেখানেও কোনও ধরনের ফিল্টারের বালাই না করে দিয়ে যাচ্ছেন একের পর এক পোস্ট।

প্রসঙ্গত , মমতার জয়ের ঘোষণা হওয়ার পর তাকে শুভেচ্ছা জানিয়েও টুইট করেন কাঙ্গনা । তাতেও ছিল না খোঁচার কমতি।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here