তারেক মাসুদ চলে যাওয়ার ১০ বছর আজ (ভিডিও)

তারেক মাসুদ চলে যাওয়ার ১০ বছর আজ (ভিডিও)

তারেক মাসুদ ভালোবাসতেন চলচ্চিত্রকে। তাকে সিনেমাযোদ্ধা বললেও ভুল হবে না।যার সৃজনশীলতায় ছিলো বিচক্ষণতা, আর মানসপটে ছিলো গণতান্ত্রিকবোধ, অসাম্প্রদায়িক চেতনা এবং মানবতাবাদ। একটু একটু করে যখন আলোর মুখ দেখছিলো রুপালি পর্দা ঠিক তখন, জীবনের রানওয়ে থমকে যায় এই নির্মাতার।

এই চলচ্চিত্র নির্মাতা ১৯৫৬ সালের এই দিনে ফরিদপুরের ভাঙ্গার নূরপুর গ্রামে জন্মগ্রহণ করেন। আমেরিকায় বসে আরাম আয়েশে জীবনটা কাটিয়ে দিতে পারতেন তারেক মাসুদ। কিন্তু সিনেমার প্রতি প্রেম থেকে সে পথে না গিয়ে স্ট্রাগলের পথ বেছে নিয়েছিলেন তিনি।

মুক্তির গান, মুক্তির কথা, আদম সুরত, মাটির ময়না, অন্তর্যাত্রা ও রানওয়ে-এর মতো ছবি নির্মাণের মাধ্যমে তারেক মাসুদ বাংলা চলচ্চিত্রে নতুন ধারার সূচনা করেছিলেন। ২০০২ সালে প্রথম বাংলাদেশি চলচ্চিত্র হিসেবে মাটির ময়না কান চলচ্চিত্র উৎসবে ডিরেক্টর্স ফোর্টনাইট আয়োজনে শ্রেষ্ঠ চলচ্চিত্র বিভাগে ফিপরেস্কি আন্তর্জাতিক সমালোচকদের পুরস্কার লাভ করে। চলচ্চিত্রটি শ্রেষ্ঠ শিশু শিল্পী ও শ্রেষ্ঠ চিত্রনাট্যকার বিভাগে জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার লাভ করে। এছাড়াও ২৪তম বাচসাস পুরস্কার অনুষ্ঠানে পাঁচটি বিভাগে পুরস্কার সহ বিভিন্ন দেশিয়-আন্তর্জাতিক পুরস্কার জেতে। এটি ২০০২ সালে ৭৫তম একাডেমি পুরস্কার আয়োজনে শ্রেষ্ঠ বিদেশি ভাষার চলচ্চিত্র বিভাগে বাংলাদেশের নিবেদিত প্রথম চলচ্চিত্র।

চলচ্চিত্র এবং তারেক মাসুদ নাম দুটি যেনো জড়িয়ে আছে একে অন্যকে। কারণ ব্যক্তি তারেক মাসুদের ধ্যান জ্ঞানে বিচরণ করতো একমাত্র চলচ্চিত্র। মাদ্রাসায় লেখাপড়া করা এ মানুষটি বিশ্ববিদ্যালয়ে ওঠার আগ পর্যন্ত দেখেননি কোনো সিনেমা। অথচ তাঁর সৃজনশীলতা চলচ্চিত্র অঙ্গণকে দিয়েছে আদম সুরত, মুক্তির কথা, মুক্তির গান, নারীর কথা, নরসুন্দর, মাটির ময়না, অন্তর্যাত্রা, রানওয়ে’র মতো চলচ্চিত্র। মানবতাবাদ, অসাম্প্রদায়িকতা এবং গণতান্ত্রিক মনোভবে আবৃত ছিলো তাঁর মানসপট। যা দৃশ্যায়িত হতো সেলুলয়েডের পর্দায়। একটু একটু করে যখন আলোর মুখ দেখছিলো রুপালি পর্দা ঠিক তখন জীবনের রানওয়ে থমকে যায় এই নির্মাতার। একুশে পদক, জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার, কান চলচ্চিত্র উৎসবে ডিরেক্টরস ফোর্টনাইট পুরস্কার সহ পেয়েছেন অসংখ্য সম্মাননা। ২০১১ সালে ১৩ আগস্টে ‘কাগজের ফুল’ এর শুটিং লোকেশন দেখে ঢাকায় ফেরার পথে মানিকগঞ্জের জোকা নামক স্থানে মর্মান্তিক সড়ক দূর্ঘটনায় প্রাণ হারান ক্ষণজন্মা এই নির্মাতা।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here