নাটক বা সিনেমা অভিনেতার নয়, পরিচালকের এবং প্রযোজকের – চঞ্চল চৌধুরী

0
94

একমাত্র বাংলাদেশেই বোধহয় নির্মাতা এবং প্রযোজকদের একদমই যেন মূল্যায়ন না করার ব্যাপারটা মারাত্মক আকার ধারন করেছে। এখানে একটি প্রডাকশান অভিনেতা অভিনেত্রীর নামেই মার্কেটিং করার একটা নগ্ন প্রয়াস দেখা যায়। এই অভিযোগটি আগে ছিল টেলিভিশন চ্যানেলগুলোর বিপক্ষে, কিন্তু এখন তা ওটিটি প্লাটফর্মেও ভাইরাসের আকার ধারন করেছে। বহুদিন থেকেই একটা আলোচনা বেশ জোরেশোরে চলে আসছিল যে আমাদের ইন্ডাস্ট্রি শিল্পী শাসিত হয়ে পড়েছে। কোনো টেলিভিশন চ্যানেলের অনুষ্ঠান প্রধান বা সিইও একজন নির্মাতা বা প্রযোজকের কাছে প্রথমে গল্প শুনতে না চেয়ে প্রশ্ন করেন কাস্টিং কারা? হাতে গোনা তিন চারজন অভিনেতা অভিনেত্রীর নাম চাপিয়ে দেয়া হয় ঠুনকো মার্কেটিং এর অযুহাতে। সুতরাং গল্প কি হলো, নির্মাণ কি হলো সে ব্যাপারে একেবারেই ভ্রূক্ষেপ নেই। সে কারনেই বাংলা নাটক আজ প্রশ্নের মুখে। এর কারন আসলে কী? এবারে সে বিষয়ে প্রশ্ন তুলেছেন দেশের অন্যতম জনপ্রিয় অভিনেতা চঞ্চল চৌধুরী। তিনি তাঁর ফেসবুক একাউন্ট থেকে এমন একটা প্রশ্ন ছুঁড়ে দিয়ে সমালোচনা করেছেন। তিনি বিশেষ করে উল্লেখ করেছেন তাঁর অভিনীত হৈচৈ প্লাটফর্মের জনপ্রিয় তাকদীর এর কথা। সবাই বলে, এমনকি হৈচৈ ও মার্কেটিং করে চঞ্চলের তাকদীর হিসেবে যেখানে আসল মালিক নির্মাতা সাওকীর নাম কেউ জানেনই না। এই সিস্টেম অতি অবশ্যই বদলাতে হবে বলেও তিনি তাঁর অভিমত ব্যক্ত করেছেন। তিনি লিখেছেন —

একটা সময় পর্দায় লেখা হতো…সত্যজিৎ রায়ের ‘পথের পাঁচালী’ বা হুমায়ুন আহমেদের ‘শঙ্খনীল কারাগার’ বা মামুনুর রশীদের নাটক বা মোস্তফা সরোয়ার ফারুকীর ‘ডুব’ বা সালাউদ্দিন লাভলু’র নাটক..ব্লা ব্লা ব্লা…..এরকম মেনে নিতে আপত্তি নেই…কারন যাঁর লেখা,তারই ডিরেকশান হলে এটা লেখা যায়…কিন্তু ইদানীং দেখি,দেশী বা বিদেশী ওটিটি প্লাটফর্ম গুলোতে শিল্পীর নামে লেখা হয়,অমুকের নাটক বা ওয়েব সিরিজ…যেহেতু শিল্পীদেরকেই দর্শকরা বেশী চেনেন,সেই ব্যবসায়িক সুযোগ টা নেবার জন্য এরকম লেখা হচ্ছে….এবার বলুন তো,একটি নাটক বা সিনেমার মালিকানা কার?আসলে প্রডিউসারের….প্রচারের সার্থে যদি ডিরেক্টরের নাম যায়,তাও মেনে নেয়া যায়…যেমন গিয়াস উদ্দিন সেলিমের সিনেমা ‘মনপুরা’ বা অমিতাভ রেজার ‘আয়নাবাজি’….কিন্তু যদি লেখা হয় চঞ্চল চৌধুরীর ‘তাকদীর’….আমি বলবো…এটা ঠিক নয়…..‘তাকদীর’ সৈয়দ শাওকী’র বা হৈ চৈ এর…..আমি এতে অভিনয় করেছি মাত্র…লিখলে এটুকুই লিখবেন,চঞ্চল চৌধুরী অভিনীত,’তাকদীর’….আর স্ক্রীপ্ট রাইটারদের কথা কি বলবো ??তাঁরা তো সর্বদাই অবহেলিত….যাঁর যাঁর প্রাপ্তি তাঁর তাঁর হোক…নাম বেচা বন্ধ হোক….স্টারের নাম ভাঙিয়ে প্রোডাকশন বিক্রি বা প্রচার বন্ধ হোক।নাটক বা সিনেমা টিম ওয়ার্ক….এটা মনে রাখলেই চলবে….

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here