বগুড়ার পর রাজশাহী, কুমিল্লা ও সৈয়দপুরে হবে স্টার সিনেপ্লেক্স

বগুড়ার পর রাজশাহী, কুমিল্লা ও সৈয়দপুরে হবে স্টার সিনেপ্লেক্স

একের পর এক বন্ধ হয়ে যাচ্ছে সিনেমা হল। অনেক উপজেলা ও জেলা তো হলশূন্য হয়েছে, পুরো রাজশাহী বিভাগে নেই কোনো সিনেমা হল। সিনেমা শিল্প পড়ছে চরম সংকটে। হলের অভাবে চাহিদামতো সিনেমা মুক্তি দিতে পারেন না প্রযোজকরা। গুনতে হয় লোকসান। এতে আগ্রহ হারাচ্ছেন প্রযোজকরা। কমছে সিনেমা।

এ অবস্থায় আশা জাগানিয়া সংবাদ দিলো স্টার সিনেপ্লেক্স। সারাদেশে ক্রমান্বয়ে সিনেমা হল নির্মাণের উদ্যোগ নিয়েছে প্রতিষ্ঠানটি।

করোনা মহামারির প্রভাবে সিনেমা ইন্ডাস্ট্রির এ সংকটময় সময়ও তারা ঢাকার বাইরে  করছে তাদের শাখা। শিগগিরই বগুড়ায় নতুন শাখা চালু করতে যাচ্ছে তারা। বগুড়া শহরের সাতমাথা মোড় নওয়াব বাড়ি রোডে অবস্থিত পুলিশ প্লাজায় নির্মিত হবে স্টার সিনেপ্লেক্সের মাল্টিপ্লেক্স সিনেমা হল। ঢাকার বাইরে এটিই তাদের প্রথম শাখা।

রোববার রাজধানীর প্যান প্যাসিফিক সোনারগাঁও হোটেলে স্টার সিনেপ্লেক্স এবং বাংলাদেশ পুলিশ কল্যাণ ট্রাস্টের সঙ্গে এ বিষয়ক একটি চুক্তি স্বাক্ষরিত হয়। চুক্তিতে স্বাক্ষর করেন স্টার সিনেপ্লেক্সের চেয়ারম্যান মাহবুব রহমান রুহেল এবং বাংলাদেশ পুলিশের এআইজি (কল্যাণ ট্রাস্ট) মো. ফেরদৌস আলী চৌধুরী।

অনুষ্ঠানে আগামী বছরের মাঝামাঝি মাল্টিপ্লেক্সটি চালুর পরিকল্পনা রয়েছে বলে জানান স্টার সিনেপ্লেক্সের চেয়ারম্যান মাহবুব রহমান রুহেল। দুটি হল থাকবে এখানে। মোট আসন সংখ্যা ৪২৫। বরাবরের মতো নান্দনিক পরিবেশ, সর্বাধুনিক প্রযুক্তি সংবলিত সাউন্ড সিস্টেম, জায়ান্ট স্ক্রিনসহ বিশ্বমানের সিনেমা হলের যাবতীয় সুযোগ-সুবিধা নিয়ে হলগুলো নির্মিত হবে বলে জানান তিনি।

ঢাকার বাইরের দর্শকরা বিশ্বমানের সিনেমা হলে ছবি উপভোগ করার সুযোগ থেকে বঞ্চিত। দেশব্যাপী অনেকগুলো সিনেমা হল নির্মাণের পরিকল্পনার কথা আগেই বলা হয়েছিল। সেই পরিকল্পনা বাস্তবায়নের পদক্ষেপ এটি। দেশের সিনেমা ইন্ডাস্ট্রির প্রসারে এ পদক্ষেপ অব্যাহত থাকবে বলে জানান মাহবুব রহমান।

তিনি আরও জানান, বগুড়ার পর পর্যায়ক্রমে রাজশাহী, কুমিল্লা ও সৈয়দপুরে নির্মিত হবে স্টার সিনেপ্লেক্স।


স্টার সিনেপ্লেক্সের চেয়ারম্যান মাহবুব রহমান রুহেল এবং বাংলাদেশ পুলিশের এআইজি (কল্যাণ ট্রাস্ট) মো. ফেরদৌস আলী চৌধুরী

সংবাদ সম্মেলনে আরও ঘোষণা দেয়া হয়, নিম্ন আয়ের মানুষের বিনোদনের জন্যও আরেক ধরনের সিনেমা হল চেইন চালু করার পরিকল্পনা রয়েছে স্টার সিনেপ্লেক্সের। যার টিকিট ক্রয়ক্ষমতা থাকবে সাধারণ মানুষের নাগালে।

প্রসঙ্গত, ২০০৪ সালের ৮ অক্টোবর রাজধানীর বসুন্ধরা সিটি শপিংমলে যাত্রা শুরু করে দেশের প্রথম মাল্টিপ্লেক্স সিনেমা হল ‘স্টার সিনেপ্লেক্স’। বর্তমানে ঢাকায় চারটি শাখা রয়েছে। ধানমন্ডির সীমান্ত সম্ভার (সাবেক রাইফেলস স্কয়ার), মহাখালীর এসকেএস (সেনাকল্যাণ সংস্থা) টাওয়ার।

সম্প্রতি মিরপুর-১ নম্বর সনি স্কয়ারে চালু হয় আরেকটি শাখা।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here