সঙ্গীত সাধক ওস্তাদ রবিউল হোসেনকে স্মরণ

সংগীত সাধক ওস্তাদ রবিউল হোসেনকে স্মরণ

সঙ্গীত সাধক ওস্তাদ রবিউল হোসেন ১৯৪৭ সালে ভারতের পশ্চিমবঙ্গের নদীয়া জেলার নবদ্বীপ গ্রামে জন্মান। তিনি সঙ্গীত ব্যক্তিত্ব ওস্তাদ মোজাম্মেল হোসেনের ছেলে। বাবার কাছেই তার সঙ্গীতের হাতেখড়ি। দাদা শেখ হারান উদ্দীনের সেতারা বাদক হিসেবে সুনাম ছিল ওস্তাদ রবিউল হোসেনের।

এছাড়াও ওস্তাদ রবিউল হোসেন তার চাচা ইয়াসীন আলী, ওস্তাদ আজিজ বাচ্চু, পণ্ডিত অমরেশ রায় চৌধুরী, উচ্চাঙ্গ সঙ্গীত সাধক ওস্তাদ দাউদ ও সঙ্গীত বিশেষজ্ঞ ওস্তাদ সগিরুদ্দিন খানের কাছে তালিম নেন।

তিনি জাতীয় শিক্ষাক্রম অষ্টম শ্রেণির উচ্চাঙ্গ সঙ্গীত বিষয়ে পাঠ্যপুস্তক রচনা করেন। ওস্তাদ রবিউল ইসলাম ১৯৭৭ সালে রাজশাহীতে প্রতিষ্ঠা করেন হিন্দোল সঙ্গীত বিদ্যাপীঠ। তিনি রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের সঙ্গীত বিভাগে দীর্ঘদিন সঙ্গীত বিষয়ে ক্লাস নেন ।

দুরারোগ্য রোগে আক্রান্ত হয়ে দেশের খ্যাতিমান এই সঙ্গীত সাধক ২০১৩ সালের ১৫ নভেম্বর  শুক্রবার দুপুর ১২টায় রাজশাহী মহানগরীর ষষ্ঠীতলায় নিজ বাড়িতে শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন । মৃত্যুকালে তার বয়স হয়েছিল ৬৬ বছর। তিনি দুই ছেলে ও দুই মেয়েসহ অসংখ্য গুণগ্রাহী রেখে গেছেন।

দীর্ঘ ৮ বছরে সঙ্গীত অঙ্গন হারিয়েছে এক গুরুকে ।

ওস্তাদ রবিউল হোসেন, পণ্ডিত অমরেশ রায় চৌধুরী

আজ সঙ্গীত সাধক ওস্তাদ রবিউল হোসেন স্মরণে বিভিন্ন সংগঠনের পক্ষ থেকে শোকবার্তায় মরহুমের আত্মার মাগফেরাত কামনা করে শোকার্ত পরিবারের প্রতি সমবেদনা জানিয়েছেন সংগঠনের নেতৃবৃন্দ।

সাধক ওস্তাদ রবিউল হোসেন

আজ ১৫-ই নভেম্বর, সঙ্গীত সাধক ওস্তাদ রবিউল হোসেনের ৮ম মৃত্যুবার্ষিকীতে জানাই বিনম্র শ্রদ্ধা । 

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here